গবেষণার জন্য গভীর ভালবাসা দরকার

Need a deep love for research: National University VC

0

গবেষণার জন্য গভীর ভালবাসা দরকার: জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় ভিসি।

 

Need a deep love for research: National University VC
গবেষণার জন্য গভীর ভালবাসা দরকার: জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় ভিসি।

সফল গবেষণার জন্য গভীর ভালবাসা থাকা দরকার বলে মনে করেন জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. হারুন-অর-রশিদ। তিনি বলেন, গবেষণার জন্য আর্থিক সীমাবদ্ধতা কোন সমস্যা নয়। সফল গবেষণার জন্য দরকার একাগ্রতা ও একনিষ্ঠতা।

আজ বুধবার গাজীপুরে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় মূল ক্যাম্পাসে শিক্ষক প্রশিক্ষণ কোর্সের চতুর্থ ব্যাচের সমাপনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন উপাচার্য।

উপাচার্য অধ্যাপক ড. হারুন-অর-রশিদ বলেন, ‘লন্ডন-ভিত্তিক সাপ্তাহিক ম্যাগাজিন ‘টাইমস হায়ার এডুকেশন’ পরিচালিত এক জরিপে দেখা গেছে, এশিয়া মহাদেশের ৪১৭টি সেরা বিশ্ববিদ্যালয়ের তালিকায় নেই বাংলাদেশের কোনো বিশ্ববিদ্যালয়। কিন্তু নেপাল, ভারত, পাকিস্তানসহ অনেক দেশের অনেক বিশ্ববিদ্যালয়ের নামই এই তালিকায় রয়েছে।’

উপাচার্য আরও বলেন, ‘আমাদের মধ্যে পেশাদারিত্বের ঘাটতি সবচেয়ে বেশি। শিক্ষকতা শুধু পেশা নয়, এটা নেশাও। পেশাদারিত্ব এবং কমিটমেন্ট বজায়ে রেখে দায়িত্ব পালন করতে পারলে কোন কিছুই অসম্ভব নয়। বাংলাদেশের কোন বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রতিমাসে শিক্ষক প্রশিক্ষণ কর্মসূচি হয় না। একমাত্র জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় এটি করে যাচ্ছে। এই ধারা অব্যাহত থাকবে। এরফলে আমরা গুণগত শিক্ষা নিশ্চিত করতে পারবো।’

প্রশিক্ষণে অংশ নেয়া শিক্ষকদের উদ্দেশ্যে অধ্যাপক ড. হারুন-অর-রশিদ বলেন, ‘এখানে আমরা আপনাদের সবকিছু শিখিয়ে দিতে পারবো না। ২৮ দিনে তা সম্ভবও নয়। তবে আপনাদের দৃষ্টিভঙ্গির পরিবর্তন ঘটাতে হবে। মাইন্ড সেট তৈরি করতে হবে। ক্রিটিক্যাল চিন্তা থাকতে হবে। বড় পরিসরে ভাবতে হবে। আপনাদের স্বপ্ন থাকতে হবে। শিক্ষার্থীদের স্বপ্ন দেখাতে হবে। বড় কিছুর হওয়ার স্বপ্ন থাকলে এগিয়ে যাওয়া যাবে।’

স্নাতকোত্তর শিক্ষা, প্রশিক্ষণ ও গবেষণা কেন্দ্রের ডিন অধ্যাপক মো. আনোয়ার হোসেনের সভাপতিত্বে সমাপনী অনুষ্ঠানে অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের উপ-উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. মশিউর রহমান, ইতিহাস, অর্থনীতি, অ্যাকাউন্টিং বোটানিসহ চার বিভাগের চারজন কোর্স উপদেষ্টা প্রফেসর ড. মেসবাহ কামাল, প্রফেসর ড. শফিক উজ জামান, প্রফেসর ড. ধীমান কুমার চৌধুরী, প্রফেসর ড. মিহির লাল শাহ । অনুষ্ঠান শেষে প্রশিক্ষণে অংশ নেয়া ১৪০ জন শিক্ষককে সনদ তুলে দেন জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় উপাচার্য অধ্যাপক ড. হারুন-অর-রশিদ।